এশিয়ার বন্য গাধার শ্রেনীবিন্যাস

Equus hemionus- এশিয়ার বন্য গাধা/Asiatic wild ass বা এশিয়ার বন্য গাধার বিস্তার সংকুচিত হয়ে এসেছে। বর্তমানে E. hemionus বিপদাপন্ন প্রাণী। এদেরকে ভারতে কচ্ছ প্রদেশের সাগরের কাছাকাছি স্থানে বন্য পরিবেশে দেখা যায়।

শ্রেণিবিন্যাস (Classification) :


Phylum – Chordata
Subphylum – Vertebrata
Class – Mammalia
Subclass – Theria
Order – Perissodactyla
Family – Equidae
Genus – Equus
Species- E. hemionus

স্বভাব ও বাসস্থান :

গাধা E. hemionus ভারতের কচ্ছ প্রদেশের সাগর উপকূলে বন্য পরিবেশে ঘুরে বেড়ায়। সেখানে এরা ঘাস, লতাপাতা খেয়ে জীবন ধারণ করে। এরা ঘােড়া থেকে আকারে ছােট এবং ঘােড়ার মতাে গৃহে পালিত হয় ও পােষ মানে। কৃষকের বিভিন্ন কাজে বিশেষ করে মালামাল পিঠের উপর চড়িয়ে এদিক সেদিক নেয়া যায়। বন্য গাধা জোরে দৌড়াতে ও গৃহপালিত গাধা হেঁটে চলতে স্বাচ্ছন্দ্যবােধ করে। গৃহপালিত গাধা অতি বিশ্বস্ত ধরনের বেজোড় ক্ষুরবিশিষ্ট স্তন্যপায়ী প্রাণী।

গঠন (Structure) :

গাধা মূলত মাঝারি আকারের স্তন্যপায়ী প্রাণী। এদের মাথার আকার ছােট। গ্রীবার পৃষ্ঠ দিকে কেশর বিদ্যমান এবং কাধে কালাে ডােরা দেখা যায়। এদের লেজের শেষ প্রান্তে ললামগুচ্ছ থাকে। এদের প্রতিটি অগ্রপদে শৃঙ্গায়িত ক্যালােসিটি (hornified calocity) বিদ্যমান।

প্রজনন (Reproduction) :

প্রাকৃতিক পরিবেশে গাধা যৌন মিলনের মাধ্যমে বংশ বিস্তার করে। স্ত্রী গাধার এস্ট্রাস চক্র (astras cycle) সক্রিয় হওয়ার পর পুরুষ গাধার সাথে যৌন মিলনে লিপ্ত হয়। এস্ট্রাস চক্রের মাধ্যমে গরম হলে (heat | period) স্ত্রী গাধা শুধুমাত্র যৌন মিলনে আগ্রহ প্রকাশ করে। স্ত্রী গাধা একবারে একটি মাত্র বাচ্চা প্রদান করে।

অর্থনৈতিক গুরুত্ব (Economic importance) :

গাধা যেহেতু পােষ মানে তাই এদেরকে গৃহে পালন করা হয়। গাধা ব্যবহার করে সনাতন পদ্ধতিতে চাষাবাদ করা হয়। মালামাল টানার জন্য গাধার পিঠে বস্তা দিয়ে অনেক দূর নিয়ে যাওয়া যায়। এছাড়া গাধা টানা গাড়ির মাধ্যমে মালামাল বহন করা যায়। গাধার খামার গড়ে তুলে এদের বিক্রি করে লাভবান হওয়া যায় ।

এ জাতীয় আরও সংবাদ

Back to top button