কলকাতা বইমেলায় শাম্মি তুলতুলের বই,“নরকে আলিঙ্গন” প্রকাশ।

শাম্মী তুলতুল মাত করেছেন একে একে উপন্যাস চোরাবালির বাসিন্দা, মনজুয়াড়ি, পদ্মবু, গণিত মামার চামচ রহস্য, চাঁদে বেড়ানোর পাসপোর্ট, দৈত্য হবে রাজা, টুনটুনির পাখিস্কুল, ভূত যখন বিজ্ঞানী, একজন কুদ্দুস ও কবি নজরুল এই বইগুলো দিয়ে। এবার মাতাতে আসছেন অনুগল্পের বই “নরকে আলিঙ্গন” নিয়ে কলকাতা বইমেলা ২০২২ এ।


জানুয়ারীতে কলকাতা বইমেলায় প্রকাশিত হতে যাচ্ছে বাংলাদেশের মিষ্টি কন্যা জনপ্রিয় লেখিকা তুলতুলের নতুন অনুগল্পের বই “নরকে আলিঙ্গন” ২০২২।
প্রকাশনীর নাম “এবং শব্দ প্রকাশনী”। প্রকাশক সুমন্ত ভৌমিক। প্রচ্ছদ করেছন শুভ্রা হালদার ।
মোট ১৭ টি গল্প নিয়ে বইটি প্রকাশিত হতে যাচ্ছে। গল্পে উঠে এসেছে যুদ্ধ, রহস্য , প্রেম- ভালোবাসা, রম্য,কবিদের রহস্যময়তা, মশকরা ও আমাদের সমাজের ঘটনাগুলোর কল্পনা ও বাস্তবের মিশেল।তাছাড়া এখানে থাকছে তার চট্টগ্রামের আঞ্চলিক ভাষায় রচিত গল্পের নাম। যেটা তিনি প্রথম শুরু করেছেন।


কলকাতা বই প্রকাশ সম্পর্কে তুলতুল বলেন, কলকাতা বইমেলায় আমার প্রথম বই প্রকাশিত হচ্ছে এটি আমার জন্য আনন্দের।স্বপ্নগুলোর একটি।সেখানে আমি নিয়মিত লিখালিখিও করে যাচ্ছি। কলকাতার অনেক বন্ধু, পাঠক আমাকে খুব ভালোবাসেন।তারা অনেকে আমার চোখ দিয়ে চট্টগ্রামকে প্রথম জানতে পেরেছেন। তাদের আগ্রহে এবং আমার প্রকাশক সুমন্ত দাদার অশেষ আন্তরিকতায় আমার বইটি প্রকাশিত হচ্ছে। ভারতে অনেক বন্ধু আমার চাঁটগা ভাষার লিখা পড়ে চাঁটগা ভাষার প্রতিও খুব আগ্রহ দেখিয়েছেন। তাদের জন্য কয়েকটি গল্পের নামকরণও করেছি আমার আঞ্চলিক ভাষায়। এটি এইবার প্রথম আমি শুরু করেছি। তাই সবার কাছে দোয়া -আশীর্বাদ চাই।

একটি সাহিত্য, সাংস্কৃতিক,রাজনৈতিক, অভিজাত ও মুক্তিযোদ্ধা পরিবারে শাম্মী তুলতুলের জন্ম। ছোট বেলায় পড়ালেখায় প্রচুর ফাঁকিবাজ ছিলেন টিচার এলে নানা অজুহাতে তাঁদের তাড়াতেন। কিন্তু বর্তমানে তিনি বাংলাদেশের জনপ্রিয় সাহিত্যিক এবং দেশ সেরা কলেজের ছাত্রী।


বাবা আলহাজ আবু মোহাম্মদ খালেদ শিক্ষাবিদ, মুক্তিযোদ্ধা। বিশিষ্ট ব্যবসায়ী।
মা আলহাজ কাজী রওশন আখতার একজন রাজনীতিবিদ ছিলেন। ছোটবেলা থেকেই লেখালেখির হাতেখড়ি আঞ্চলিক ও জাতীয় পত্রিকা দিয়ে শুরু।এই পর্যন্ত বইয়ের সংখ্যা ১৫ টি। “নরকে আলিঙ্গন” তার ১৬ তম বই।

এ জাতীয় আরও সংবাদ

Back to top button