টক ঝাল আমের আচার

চারিদিকে চলছে লকডাউন। সাথে আবহাওয়া এখন গরম।আমরা সবাই এখন নিজ নিজ গৃহে সময় পার করছি। এখন জৈষ্ঠমাস।এই সময়ে প্রচুর আম পাওয়া যায় ।আর দামেও সস্তা। চাইলেই বানানো যায় টক ঝাল কাচা আমরে আচার।

আচার বানাতে যা যা প্রয়োজন, তা হলো-

  • ৫ টি কাঁচা আম
  • ২ টি শুকনো মরিচ
  • ১ চা চামচ রসুন কুচি
  • ১/২ চা চামচ আদা কুচি
  • ১ কাপ সরিষার তেল
  • ১ চা চামচ হলুদ গুঁড়া
  • ১ চা চামচ শুকনো মরিচের গুঁড়া
  • ২ চা চামচ গোটা সরিষা
  • ১ চা চামচ মৌরী
  • ১ টি শুকনো মরিচ
  • ১/২ চা চামচ গোটা জিরা
  • ১/২ চা চামচ জোয়ান
  • ১/৪ চা চামচ শুকনো খোলায় ভাজা মেথি
  • ১ বড় চামচ কালো সরিষা
  • ১/৪ চা চামচ কালোজিরা
  • ১/৪ চা চামচ মেথি
  • ১ বড় চামচ চিনি (স্বাদঅনুযায়ী)
  • ১ চা চামচ লবন
  • ৩ বড় চামচ ভিনিগার
  • এক চিমটি সোডিয়াম বেঞ্জোনেট

রেসিপি – আমের খোসা সহ চৌকো করে কেটে নিয়ে তাতে সামান্য হলুদ আর লবণ মাখিয়ে ৪-৫ ঘন্টা রোদে শুকোতে হবে।জল থাকলে তা যেন শুকিয়ে নিতে হবে। শুকনো খোলায় আস্ত সরিষাা, শুকনো মরিচ, মৌরী, মেথি ভেজে গুঁড়া করে নিতে হবে এবং আলাদা জারে রেখে দিতে হবে।এরপর, গোটা সরিষা, জোয়ান, মেথি, মৌরী, কালোজিরা বেটে নিতে হবে।শুকানো হয় যাবার পর ভিনিগার দিয়ে সব একত্রে মিশিয়ে নিতে হবে।

সর্ষের তেল গরম হলে এতে হিং, এক চিমটি মেথি ফোড়ন দিতে হবে। এবার আম কুচি, আদা কুচি, রসুনকুচি, শুকনো লঙ্কা কুচি, গুঁড়ো মশলা, হলুদ গুঁড়ো, শুকনো লঙ্কা গুড়ি, লবণ এবং চিনি দিয়ে দিতে হবে।

উল্টে নেড়েচেড়ে আম দিয়ে কষাতে হবে, আমগুলো যেন বেশি নরম না হয়ে যায় সেদিকে অবশ্যই খেয়াল রাখবেন। এবার, শুকনো গুঁড়ো মশলা দিয়ে দিতে হবে।পানি দেওয়ার প্রয়োজন নেই, তবে যদি প্রয়োজন হয় সামান্য ছিটিয়ে নেওয়া যায় তবে যেন মশলাগুলো আমের গায়ে মিশে যায়।শেষে সোডিয়াম বেঞ্জোনেট ছড়িয়ে উল্টে নিতে হবে।

ঠান্ডা করে কাচের বোতল ভরে নিন এবং কড়া রৌদ্রে ৪-৫ দিন রেখে দিন। চিনি যোগ করতে হবে যাতে টক মিষ্টি চটপটা স্বাদটা খোলে।এরপর আরও ৩-৪ দিন রোদে রেখে দিন।

এই আচারটি নিয়মিত রোদে দিলে দীর্ঘদিন পর্যন্ত সংরক্ষণ করা যাবে।

এ জাতীয় আরও সংবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button