পূর্ব শত্রুতার জেরে গন্ডগোল, আহত-৩

৩নং ভাবিচা ইউনিয়নের বাদ মালঞ্চী গ্রামের (ঝালকুড়ি) পাড়ায় দীর্ঘ দিনযাবত রাউতাড়া গ্রামের বেশ কিছু লোকজন বসবসস করে। বাদমালন্চী গ্রামের নজরুল পিতাঃমৃতু সামাদ মন্ডল একই পাড়ায় বসবাস করে আসছে। পাড়ার সবাই একদিকে হয়ে নজরুল কে উচ্ছেদ করার চেষ্টা চালায়।

হঠাৎ করে সন্ধার সময় নজরুল হাটার রাস্তার সামনে বেড়া দেখে। কে বেড়া দিয়েছে বলে চিৎকার করে।
আচমকাভাবে নজরুলের উপর(১) উজ্জ্বল ওতার স্ত্রী আংগু (২) আজাহার ও তার কন্যা পপি (৩)জুয়েল ও তার মা নাজমা(৪)আজাহরের বড় ভাইয়ের ছেলে রেজু এরা এলোপাতাড়ি ভাবে বাঁশ ও কোদালের বাশ দিয়ে ফ্লিমিষ্টাইলে মারতে থাকে।

নজরুলের স্ত্রী হাসিনা ও তার কন্যা নাছিমা চিৎকার দিয়ে উঠলে।হামলা কারিরা নজরুল হাসিনা ওনাছিমার মুখ চেপে ধরে মারে এবং জোর করে ঘরে ঢুকে বাস্কভেঙ্গে ২০০০০(বিশ) হাজার টাকা বের করে নেয়।
এরা নিয়ামতপুর মেডিক্যালে চিকিৎসা নেয়।

ঘটনাটি রিপোর্টার জানতে পেরে পরের দিন ১২/০৬/২০২০ইং তারিখ দুপুর বেলা ছবি তোলে এই সময় তহমিনা স্বামী উজ্জ্বল রিপোর্টার কে নোংরা ভাষায় গালিগালাজ করতে থাকে। নির্যাতিত হাসিনা নিষেধ করলে, তাহমিমা হাসিনাকে বাস দিয়ে বাড়ীমারে। রিপোর্টার ছবি তুলতে গেলে তাহমিনার স্বামী মোবাইল ফোন কেড়ে নিয়ে হাসিনাকে মারতে থাকে। চিংকার শুনে আসে পাশের লোকজন হাসিনাকে গালি-গালাজ করে। উপস্থিত লোকজন দেখে হাসিনাকে ছেড়েদেয়।

উজ্জ্বল রিপোর্টার কে মোবাইল ফোন ফেরত দেয়।রিপোর্টার মানসম্মানের কথা চিন্তা করে ঘটনা স্থল থেকে ফিরে আসে।

এ জাতীয় আরও সংবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button