বিশ্বকাপে দল ভালো করবে বিশ্বাস সাকিবদের

নিউজিল্যান্ড সিরিজের শেষ ম্যাচে চোটের কারণে সাকিব আল হাসানকে পায়নি বাংলাদেশ দল। তবে শেষ ম্যাচে দলের সঙ্গে না থাকলেও খেলা দেখতে মাঠে এসেছিলেন সাকিব। বিসিবি প্রেসিডেন্ট বক্সে বসে বোর্ড সভাপতি নাজমুল হাসানের সঙ্গে খেলা দেখেছেন। তখনই নাকি বিশ্বকাপে বাংলাদেশ দলের সম্ভাবনা সম্পর্কে বোর্ড প্রধানকে আশ্বস্ত করেছেন সাকিব।

আজ খেলা শেষে সাংবাদিকদের নাজমুল হাসান বলেছেন, ‘সাকিব আমাকে বলেছে, আমাদের এবার ভালো সুযোগ আছে। সাকিবের মতো খেলোয়াড় যখন বলে এবার ভালো সুযোগ আছে, তার মানে দলের ওপরও তার আত্মবিশ্বাস আছে। যেটা দলের জন্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ।’

তবে টানা সিরিজ জয়ে বাংলাদেশ দলের টি-টোয়েন্টি র‍্যাঙ্কিংয়ে দশ থেকে উঠে এসেছে ছয় নম্বরে, সেটিতে বোর্ড প্রধান সন্তুষ্ট। তাঁর আশা, র‍্যাঙ্কিংয়ের শীর্ষ আটে থাকতে পারলে ২০২২ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ সরাসরি খেলার সুযোগ পাবে বাংলাদেশ দল।

‘একটা জিনিস অস্বীকার করার উপায় নেই, কিছুদিন আগেও আমরা একদম তলানিতে ছিলাম টি-টোয়েন্টি র‍্যাঙ্কিংয়ে। সে জন্য আমরা একটু পরীক্ষা–নিরীক্ষা করারও চেষ্টা করেছি। আমরা তরুণ ছেলেদের দিয়ে চেষ্টা করছি। এখন পর্যন্ত এটা কিন্তু আমাদের পরীক্ষা–নিরীক্ষার পর্যায়েই।’ বলেছেন নাজমুল হাসান।

যদিও র‍্যাঙ্কিং এগিয়ে ২০২২ বিশ্বকাপ খেলার সুযোগ নেই। আগামী বিশ্বকাপে জায়গা করতে হলে এবারের বিশ্বকাপের প্রথম রাউন্ড পার করলেই চলবে। কারণ, এবারের সুপার টুয়েলভে খেলা ১২টি দল আগামী বিশ্বকাপে সরাসরি সুযোগ পাবে।

ম্যাচ শেষে মাহমুদউল্লাহ একই কথা বলেন সংবাদ সম্মেলনে। শেষ ম্যাচ হারলেও নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে ৩-২ ব্যবধানে সিরিজ জয় করে নিয়েছে বাংলাদেশ। এর আগে দেশ ও দেশের বাইরে বধ হয়েছে অস্ট্রেলিয়া আর জিম্বাবুয়ে। কিউইদের বিপক্ষে আজ শেষ ম্যাচে টাইগাররা হেরেছে ২৭ রানে। আজকের উইকেট ছিল ব্যাটিং সহায়ক। গত অস্ট্রেলিয়া সিরিজ থেকে রানের জন্য হাহাকার থাকলেও নতুন উইকেটে খেলা হওয়ায় আজ রান উঠেছে প্রচুর। এমন ব্যাটিং স্বর্গে পরাজয়ের কারণ হিসেবে ব্যাটিং ব্যর্থতাকেই দায়ী করেছেন বাংলাদেশ অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ।

ম্যাচ শেষে মাহমুদউল্লাহ জানিয়েছেন সিরিজ জয় এবং শেষ ম্যাচে পরাজয়ের অনুভূতি, ‘সিরিজ জয়ে অবশ্যই ভালো লাগছে। তবে আজকের ম্যাচটা জেতা উচিত ছিল। কিন্তু নিউজিল্যান্ড আজ দারুণ ব্যাট করেছে। তারা একটা ভালো স্কোর করেছিল। আমরা সেটা চেজ করতে পারিনি তবে সিরিজ জিততে পেরে ভালো লাগছে। আজকের উইকেট আসলেই ভালো ছিল। কিন্তু আমরা শেষটা ঠিকঠাক করতে পারিনি। শেষ দুই ওভারে বেশ কিছু রান প্রয়োজন ছিল। কিন্তু তাদের বোলাররা, বিশেষ করে স্পিনাররা ভালো বল করেছে।

কিউইরা উড়ন্ত সূচনা করলেও ম্যাচ একসময় নিয়ন্ত্রণে নিয়েছিল বাংলাদেশ। মাহমুদউল্লাহ বলেন, ‘ম্যাচের শুরুতে শরীফুল দুই উইকেট তুলে নিয়ে তাদের আটকানোর সুযোগ তৈরি করেছিল। কিন্তু এই উইকেট আসলে ব্যাটিং উপযোগী। আমরা রান তাড়ায় ভালো শুরু করতে পারিনি। তাই আস্কিং  রান রেট বেড়ে যাচ্ছিল। আমি আর আফিফ জুটি গড়ার চেষ্টা করেছিলাম। কিন্তু দিনশেষ তারা ভালো বোলিংয়ে ম্যাচ বের করে নেয়। তারা তাদের পরিকল্পনা বাস্তবায়ন করতে পেরেছে। তাই সব কৃতিত্ব তাদেরই।’

কথায় বলে ‘সব ভালো যার শেষ ভালো’। কিন্তু টাইগারের শেষটা আজ ভালো হলো না। অস্ট্রেলিয়া সিরিজও জয় দিয়ে শেষ করেছিল বাংলাদেশ। কিন্তু বিশ্বকাপের আগে শেষ আন্তর্জাতিক ম্যাচটিতে পরাজয়ের স্বাদ নিতে হলো। আজ হারলেও টানা তিন সিরিজ জয় দলকে আত্মবিশ্বাস দেবে বলেই মনে করেন অধিনায়ক, ‘সর্বশেষ তিন সিরিজে আমরা ভাল ক্রিকেট খেলেছিল। টানা তিনটি সিরিজ জিতেছি। দলের জন্য অবশ্যই এটা ভালো হয়েছে। আশা করছি, এই জয়গুলো থেকে পাওয়া আত্মবিশ্বাস বিশ্বকাপে কাজে দেবে।’

এ জাতীয় আরও সংবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button