শক্তিশালী হয়েছে লঘুচাপ, তুমুল বৃষ্টি ওড়িশায়

বঙ্গোপসাগরে তৈরি হওয়া নিম্নচাপ পরিণত হয়েছে গভীর নিম্নচাপে। সোমবার সকালেই সেই গভীর নিম্নচাপ ভারতের ওড়িশায় চাঁদবলির কাছ দিয়ে স্থলভাগে প্রবেশ করেছে। 

তার জেরে গত ২৪ ঘণ্টায় প্রবল বৃষ্টি হয়েছে ওড়িশায়। আগামী ২৪ ঘণ্টা বৃষ্টি চলবে বলে জানিয়েছে মৌসুম ভবন।

নিম্নচাপের প্রভাব, সোমবার (Monday) রাজ্যের বিভিন্ন জেলায় ভারী থেকে অতিভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস। ইতিমধ্যেই বিভিন্ন জেলায় শুরুও হয়ে হয়ে গিয়েছে বর্ষণ। এদিন অভি ভারী বৃষ্টিজনিত কমলা সতর্কতা জারি করা হয়েছে দক্ষিণ ২৪ পরগনা (South 24 Parganas) ও পূর্ব মেদিনীপুর (East Midnapore) জেলায়। সঙ্গে ঘণ্টায় বইতে পারে ৫০ কিলোমিটার পর্যন্ত বেগে ঝোড়ো হাওয়া। এছাড়া ভারী বৃষ্টির সতর্কতা রয়েছে বীরভূম, পশ্চিম বর্ধমান, পশ্চিম মেদিনীপুর, হওড়া, ঝাড়গ্রাম, বাঁকুড়া ও পুরুলিয়ায়। হাওড়া ও পশ্চিম মেদিনীপুরে ঘণ্টায় ৩০-৪০ কিলোমিটার পর্যন্ত বেগে বইতে পারে ঝোড়ো হাওয়া। 

আবহাওয়া অফিস জানিয়েছে, সোমবার সকাল সাড়ে ৬টা নাগাদ গভীর নিম্নচাপটি স্থলভাগে প্রবেশ করে । গত ২৪ ঘণ্টায় পুরী জেলায় ৫৩০ মিলিমিটার বৃষ্টি হয়েছে। 

উত্তাল সমুদ্র-নদী

আবহাওয়াবিদরা জানাচ্ছেন, আগামী ১২ ঘণ্টা উত্তর ও সংলগ্ন উত্তরমধ্য বঙ্গোপসাগর (Bay Of Bengal) এবং পশ্চিমবঙ্গ, ওড়িশা ও উত্তর অন্ধ্রপ্রদেশে সমুদ্র উত্তাল থাকবে। সেইমতো ইতিমধ্যেই প্রভাব পড়তে শুরু করেছে রাজ্যের উপকূলবর্তী এলাকায়। দিঘায় প্রবল জলোচ্ছ্বাস। সতর্ক করা হয়েছে পর্যটকদের। সমুদ্রে নামতে দেওয়া হচ্ছে না কাউকে। রয়েছে কড়া নজরদারি। অন্যদিকে দক্ষিণ ২৪ পরগনায় উত্তাল হতে শুরু করেছে নদীও। গোসাবা ব্লক প্রশাসন ও কাকদ্বীপ মহকুমা প্রশাসনের তরফে মৎস্যজীবীদের আগামী তিনদিনের জন্য নদী ও সমুদ্রে মাছ ধরতে যাওয়ার ক্ষেত্রে নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে। পাশাপাশি সতর্ক থাকার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে সেচ দফতর এবং এলাকার সমস্ত গ্রাম পঞ্চায়েতগুলিকে।

ফলে পানিবন্দি হয়ে পড়েছে পুরীর বহু এলাকা। পানি জমেছে ওড়িশার আরো অনেক জেলায়। আগামী ২৪ ঘণ্টায় পরিস্থিতি আরো খারাপ হতে পারে বলে জানিয়েছেন আবহাওয়াবিদরা। নিম্নচাপের জেরে পার্শ্ববর্তী রাজ্য ছত্তিশগড়েও ভারি বৃষ্টির পূর্বাভাস দেওয়া হয়েছে।

মৌসুম ভবন জানিয়েছে, বঙ্গোপসাগরের উপকূল এলাকায় আগামী ১২ ঘণ্টায় ৭০ কিলোমিটার প্রতি ঘণ্টা গতিবেগে ঝড় বইবে। পরের ১২ ঘণ্টা ঝড়ের গতিবেগ কমে হবে ৪০ কিলোমিটার প্রতি ঘণ্টা। 

পরবর্তী ৪৮ ঘণ্টায় শক্তি হারিয়ে গভীর নিম্নচাপ ফের নিম্নচাপে পরিণত হবে। পরে তা পশ্চিম-উত্তর-পশ্চিমে অগ্রসর হয়ে ছত্তিশগড় ও মধ্যপ্রদেশের দিকে চলে যাবে। বুধবার থেকে আবহাওয়ার উন্নতি হবে বলে জানিয়েছে আবহাওয়া অফিস।
সূত্র : আনন্দবাজার।

এ জাতীয় আরও সংবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button